সারা বাংলা

‘মামলা দেয়ায়’ পুড়িয়ে ফেললনে নিজের মোটরসাইকেল

ট্রাফিক পুলিশ মামলা দেওয়ায় নিজের মোটরসাইকেল আগুন দিয়ে পুড়িয়ে দিয়েছেন শওকত আলম সোহেল নামে এক ফ্রিল্যান্সিং সাংবাদিক।

সোমবার (২৭ সেপ্টেম্বর) সকাল সাড়ে ৯টার দিকে রাজধানীর বাড্ডা লিংক রোডে এ ঘটনা ঘটে।

বাইকটি আগুনে পুড়ে যাওয়ার একটি ভিডিও ইতোমধ্যে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছে।

ভিডিওতে দেখা যায়, মোটরসাইকেলটিতে দাউ দাউ আগুন জ্বলছে। পাশের লোকজন ছুটে এসে পানি দিয়ে আগুন নেভানোর চেষ্টা করছেন। কিন্তু ততক্ষণে পুড়ে গেছে বাইকটি।

এক ব্যক্তি ওই ভিডিওটি পোস্ট করে লিখেছেন, মনের কষ্টে গ্যাসলাইট দিয়ে নিজেই আগুন ধরিয়ে দিয়েছেন শওকত আলম সোহেল নামে ওই ব্যক্তি। অনেক চেষ্টা করেও আগুন নেভাতে চেষ্টা করলাম। কিন্তু ততক্ষণে সব শেষ।

জানা গেছে, আগে থেকেই ওই মোটরসাইকেলটিকে একটি মামলা দেওয়া ছিল। কাগজপত্রে ‘সামান্য ত্রুটি’ থাকায় পুলিশ ফের মামলা দেওয়ায় মনের কষ্টে এ কাণ্ড ঘটিয়েছেন ওই বাইকার।

তবে মামলা দেওয়ার বিষয়টি অস্বীকার করেছেন গুলশান ট্রাফিক জোনের ডিসি রবিউল ইসলাম। তিনি বলেন, তার বাইকের নামে মামলা দেওয়ার জন্য কাগজপত্র নেওয়া হয়েছিল। কিন্তু মামলা দেওয়া হয়নি। তার আগেই তিনি তার মোটরসাইকেলে আগুন ধরিয়ে দেন।

ডিসি রবিউল ইসলাম আরও বলেন, রাজধানীর বাড্ডার লিংক রোডে সব সময় যানজট লেগেই থাকে। সেখানে যা চলাচল স্বাভাবিক করতে রাস্তার পাশে রাখা মোটরসাইকেলগুলো সরানোর জন্য বলা হয়। কিন্তু তাতেও কাজ না হওয়ায় মামলা দেওয়ার জন্য তাদের কাগজপত্রগুলো নেওয়া হয়।

মোটরসাইকেল পুড়িয়ে দেওয়া ওই ব্যক্তি বর্তমানে বাড্ডা থানায় আছেন বলে জানান তিনি।

আরও সংবাদ

Close